Tuesday , October 20 2020
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ
Home / অপরাধ জগত / স্ত্রীকে হত্যার দায়ে গ্রেফতার

স্ত্রীকে হত্যার দায়ে গ্রেফতার

ঘোড়াঘাটে সড়কের পাশ থেকে পাওয়া মৃতদেহের পরিচয় শনাক্ত হয়েছে। তার নাম পেয়ারা বেগম (৩৭)। একইঙ্গে হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত থাকায় নিহতের স্বামী আব্দুস সালামকে (২৭) গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

শুক্রবার (৯ অক্টোবর) সকালে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে বিষয়টি সাংবাদিকদের অবহিত করেন ঘোড়াঘাট থানা পুলিশ। গ্রেফতার হওয়া আব্দুস সালাম নীলফামারী জেলার কিশোরগঞ্জ উপজেলার কালিকাপুর গ্রামের নিজাম উদ্দিনের ছেলে এবং নিহত পেয়ারা বেগমের স্বামী। নিহত পেয়ারা বেগম জয়পুরহাট জেলার আক্কেলপুর উপজেলার আবাদপুর গ্রামের মৃত মিরাজ সিকদারের মেয়ে।

সংবাদ সন্মেলনে ঘোড়াঘাট খানার ওসি আজিম উদ্দিন জানান, কয়েক বছর আগে একটি সন্তান রেখে পেয়ার বেগমের প্রথম স্বামী মারা যান। বেশ কয়েক বছর একা থাকার পর দ্বিতীয়বার আব্দুস সালামকে বিয়ে করেন তিনি। আব্দুস সালাম জেলার ফুলবাড়ি উপজেলায় ওয়ালটন কোম্পানিতে চাকরি করতেন। কিন্তু অভাব অনটনের কারণে তাদের সংসারে পারিবারিক অশান্তি লেগেই ছিল। সংসারের অভাব অনটন মেটানোর কথা বলে গত শনিবার (৩ অক্টোবর) ঢাকা যাওয়ার উদ্দেশ্য পূর্ব পরিকল্পিতভাবে পেয়ারা বেগমকে সঙ্গে নিয়ে মোটরসাইকেলে করে বাড়ি থেকে রওনা দেন আব্দুস সালাম। বিভিন্ন এলাকা ঘুরিয়ে পথিমধ্যে রাতের বেলা ঘোড়াঘাট-হিলি সড়কের সূরা মসজিদ নামক এলাকায় নিয়ে রুটি খাওয়ার কথা বলে রাস্তার পাশে ঝোপের ধারে বসেন তারা। এ সময় স্ত্রী পেয়ারা বেগমের শরীরে থাকা ওড়না দিয়ে গলায় পেঁচিয়ে হত্যা করে ফেলে রেখে পালিয়ে যায় স্বামী আব্দুস সালাম।

পর দিন রবিবার (৪ অক্টোবর) সকালে স্থানীয় লোকজন সড়কের পাশে অজ্ঞাত মৃতদেহ দেখতে পেয়ে থানায় খবর দিলে পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করে। প্রাথমিকভাবে পরিচয় শনাক্ত করতে না পারায় সিআইডি ও পিবিআই এর সহায়তায় প্রযুক্তির মাধ্যমে তার পরিচয় নিশ্চিত হয় পুলিশ।

তিনি আরও জানান, গত ৫ অক্টোবর পেয়ারা বেগমের ভাই মুনছুর আলী বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করলে মামলার তদন্তভার দেওয়া হয় উপ-পরিদর্শক খুরশীদ আলমকে।

গত বুধবার (৭ অক্টোবর) সন্ধ্যায় গোয়েন্দা তথ্য ও পারিবারিক তথ্যের ভিত্তিতে মূল সন্দেহভাজন সালামকে গ্রেফতার করা হয়। পরে জিজ্ঞাসাবাদ করলে সে হত্যায় দায় স্বীকার করে বৃহস্পতিবার দিনাজপুরের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ইসমাইল হোসেনের আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেয়। এ ঘটনায় একটি মোটর সাইকেল ও দুটি মোবাইল ফোন জব্দ করেছে পুলিশ।

About Joypur Hat

Check Also

জয়পুরহাটে মাদকসেবন ও জুয়া খেলার সরঞ্জামাদিসহ গ্রেফতার ১৭

চম্পক কুমার জয়পুরহাটে মাদক সেবন ও জুয়া খেলার সরঞ্জামাদিসহ ১৭ জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।শুক্রবার বিকেলে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *